BREAKING NEWS :: ভারতে অন্যদেশের সংখ্যালঘু শরণার্থীদের নাগরিকত্ব দেবে ভারত : প্রজ্ঞাপন জারি

0
24
Advertisement

নিউজ ডেস্ক :: ২৪ ঘন্টা লাইভ :: ২৯শে,মে :: নয়াদিল্লি :: স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে এক প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়। জানা গেছে, আফগানিস্তান, পাকিস্তান ও বাংলাদেশ থেকে গুজরাট, রাজস্থান, ছত্তিসগড়, হরিয়ানা, পাঞ্জাবের মতো রাজ্যে বসবাসকারী অ-মুসলিমদের (হিন্দু, শিখ, জৈন ও বৌদ্ধ) ভারতীয় নাগরিকত্ব দেয়া হবে। এমনটাই জানিয়েছে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। একইসাথে মুসলমান ছাড়া অন্য সবাই যাতে অবিলম্বে আবেদন করেন, এ আমন্ত্রণবার্তাও দেয়া হয়েছে অমিত শাহের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে।

ভারতের নাগরিকত্ব আইন ১৯৫৫ ও ২০০৯ সালে প্রণীত নাগরিকত্ব সংশোধন আইনের (সিএএ) অধীনে এই বিজ্ঞপ্তি জারি করা হয়েছে। ২০১৯ সালে সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন অনুযায়ী নয়। উল্লেখ্য, ২০১৯ সালে নাগরিকত্ব আইন (সিএএ) পাসের পর থেকেই ভারতজুড়ে শুরু হয়েছিল প্রতিবাদ বিক্ষোভ। এমনকি দাঙ্গাও বাধে দিল্লিতে। ২০২০ সালেও ওই সিএএবিরোধী ঝড় অব্যাহত থাকে । এরপর করোনার ছোবলে সবকিছু থেমে যায়।

Advertisement

স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের প্রকাশিত সংশোধিত নাগরিকত্ব আইন সিএএ ২০১৯-এর মাধ্যমে বাংলাদেশ, পাকিস্তান ও আফগানিস্তান থেকে ভারতে আসা হিন্দু, বৌদ্ধ, খ্রিস্টান, জৈন, শিখ ও পার্সিদের সহজেই নাগরিকত্ব দেয়ার প্রক্রিয়া করা শুরু করা হচ্ছে। রাজনৈতিক পর্যবেক্ষকদের মতে, নাগরিকত্ব সংশোধন আইন ২০১৯ বাংলাদেশ থেকে আসা হিন্দু উদ্বাস্তুদের চিহ্নিত করবে। ফলে অনাগরিক অনুপ্রবেশকারীদের চিহ্নিত করা সহজ হবে।

Advertisement

এর আগে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব অনিল মালিকের স্বাক্ষরিত প্রজ্ঞাপনে বলা হয়েছিল, ‘নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন ২০১৯, ধারা ১, উপধারা ২ মেনে ১০, জানুয়ারি ২০২০ থেকে আইন কার্যকর করা হলো।’ পরবর্তীতে করোনাভাইরাস মহামারীর কারণে বন্ধ হয়েছিল সিএএর সব প্রক্রিয়া।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here